সেমি অটো নন উইভেন টিস্যু ব্যাগ মেশিনঃ

১। সিলিং মেশিন: সেমি অটো মেশিনের বিবরনী : এই মেশিনে ১৮-৩৫ লক্ষ টাকার অটো-মেশিনের মতো নিখুঁত সিলিং করা যাবে। এ মেশিনে নন স্টপ ভাবে টিস্যু ব্যাগ সিলিং করা যায়। একটি মেশিন দিয়ে সাইড সিলিং, কলার সিলিং(সিঙ্গেল ও ডাবল), হ্যান্ডেল ব্যাগের ফিতা তৈরি করা যায়। এই একটি মেশিন দিয়ে পিলো ব্যাগ পূণাঙ্গ ভাবে তৈরি করা যায়। মধ্যম পুঁজিতে ঘরে বসে এই মেশিন দিয়ে ব্যাগ তৈরি করা যায়।

২। বিদ্যুৎঃবাসাবাড়ির বিদ্যুৎ অথাৎ 220 ওয়াট –এ এই মেশিন চলে। মেশিনে অল্প আওয়াজ হয়, ধোঁয়া হয় না।

৩। মেশিন পরিচালনাঃ 20 থেকে 25 মিনিটের কারিগরী ধারনায় প্রশিক্ষণে যে কেউ সেমি-অটো মেশিনে টিস্যুব্যাগ উৎপাদন করতে পারবেন।

৪। লাভঃ প্রতিটি ব্যাগে পাইকারী বিক্রিতে ধরণ বুঝে 1.60 হতে 3 টাকা পযন্ত লাভ করা সম্ভব । তবে খুচরা বিপনণে 5-6 টাকা লাভ হতে পারে।


৫। প্রিন্টঃ উদ্যোক্তারা চাইলে ব্যাগে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের নাম প্রিন্ট করে বাড়তি টাকা আয় করতে পারবেন। ঘরে বসে ব্যাগ প্রিন্ট করতে মাত্র 2,000 টাকা পয়োজন হবে ।


৬। কাটারঃ প্রাথমিক ভাবে যে কেউ সেমি অটো ডি কাটার মেশিন না নিয়ে 2,000 টাকা মূল্যের ম্যানুয়েল কাটার দিয়ে ব্যাগের হাতল কাটিং করতে পারবেন।

৭। প্রয়োজনীয়_মেশিনপত্রঃ অটো বা সেমি অটো পদ্ধতিতে নন উইভেন টিস্যু ব্যাগ তৈরি করতে হলে ৩ ধরণের মেশিনের প্রয়োজন হয়।

ক) সিলিং মেশিন ( ইলেট্রিক )
খ) হ্যান্ডেল ফিক্সিং মেশিন ( হাইড্রোলিক )
গ) ডি কাটার মেশিন। ( হাইড্রোলিক )

ক) সিলিং মেশিনের কাজ : সেমি-অটো নন-অভেন সিলিং মেশিনে ৫ধরনে কাজ করা যায় । প্রত্যেকটি কাজের জন্য আলাদা আলাদা রোলার প্রয়োজন হবে। যেমন :

১) ডাবল সাইড সিলিং।(রোলার )

২) সিংগেল সাইড সিলিং।(রোলার )

৩) ডাবল কলার সিলিং।(রোলার )

৪) সিংগেল কলার সিলিং।(রোলার )

৫) হ্যান্ডেলের ফিতা তৈরি।(ননষ্টপ) (প্যানেল ও রোলার )

Taurus Trbm-ud700 Automatic Non Woven Bag Making Machine Price, নন উইভেন টিস্যু ব্যাগ ফ্যাক্টরি
নন উইভেন টিস্যু ব্যাগ ফ্যাক্টরি

বিস্তারিত বিবরণঃ ডাবল সাইড সিলিং রোলার

১) ডাবল সাইড সিলিং রোলারের কাজ: এই রোলার দিয়ে ব্যাগের পাশে ডাবল সিলিং করা যাবে যাবে এবং সিলিং এর বাহিরের বাড়তি অংশ সয়ংক্রিয় ভাবে কেটে যাবে। সাধারনত বড় ব্যাগ তৈরিতে ডাবল রোলার সিলিং ব্যবহার করা হয়।

২) সিংগেল সাইড সিলিং রোলারের কাজ: এই রোলার দিয়ে ব্যাগের পাশে সিংগেল সিলিং করা যাবে এবং সিলিং এর বাহিরের বাতি অংশ সয়ংক্রিয় ভাবে কেটে যাবে। সাধারনত ছোট আকারের ব্যাগ তৈরিতে সিংগেল রোলার সিলিং ব্যবহার করা হয়।

৩) ডাবল কলার সিলিং রোলারের কাজ: এই রোলার দিয়ে ব্যাগের কলারে ডাবল সিলিং করা যাবে যাবে। ব্যাগের হাতলের দিকে এই ডাবল সিলিং করা হয়। এই ডাবল সিলিংএর মাঝখানে সাধারনত ডি-কাট করা হয়। সাধারনত পিলো ব্যাগ তৈরিতে ডাবল রোলার সিলিং ব্যবহার করা হয়।

৪) সিংগেল কলার সিলিং রোলারের কাজ: এই রোলার দিয়ে ব্যাগের কলারে সিংগেল সিলিং করা যাবে যাবে। ব্যাগের হাতলের দিকেই এই সিংগেল সিলিং করা হয়। সাধারনত হাতল ব্যাগ তৈরিতে এই সিংগেল রোলার সিলিং ব্যবহার করা হয়।

৫) হ্যান্ডেলের ফিতা তৈরি প্যানেল ও রোলারের কাজ: এই প্যানেল রোলার দিয়ে ব্যাগের ফিতা তৈরি করা যায় করা। হাতল ব্যাগে সাধারনত এই ফিতা ববহৃত হয়। মেশিনে ফিতা সরবরাহ নিশ্চিতকরা গেলে কোন লোকবল ছাড়াই এই ফিতা উৎপাদন করা সম্ভব।


খ) হ্যান্ডেল ফিক্সিং মেশিন ( হাইড্রোলিক )হ্যান্ডেল ফিক্সিং মেশিনের কাজ : এই মেশিনে ব্যাগের হ্যান্ডেল ফিক্স করা যায়। এই মেশিনে হাড্রোলিক পদ্ধিতিতে ব্যাগের হ্যান্ডেল ফিক্স হয়। এই মেশিন পরিচালনার জন্য 30কেজির একটি কম্প্রেসার মেশিন প্রয়োজন হবে। একটি কম্প্রেসার মেশিন দিয়ে দুটি মেশিন চালানো যাবে।


গ) ডি কাটার মেশিন (হাইড্রোলিক)ডিকাট মেশিনের কাজ : এই মেশিনের মাধ্যমে ব্যাগের ডি-কাট করা যায়। এই মেশিনে হাড্রোলিক পদ্ধিতিতে ব্যাগের ডি-কাট করা হয়। এই মেশিন পরিচালনার জন্য 30কেজির একটি কম্প্রেসার মেশিন প্রয়োজন হবে। একটি কম্প্রেসার মেশিন দিয়ে দুটি মেশিন চালানো যাবে। অথাৎ হ্যান্ডেল ফিক্সিং ও ডি-কাট এ্কই কপ্রেসার মেশিনের করা যাবে। মূল্য : 100,000 হতে 115,000/- (একটি) ফুল সেমি-অটো টিস্যুব্যগ তৈরির মেশিনারীজ মূল্য : প্রায় ২,৭০,০০০/-
ম্যানুয়েল ও সেমি-অটো টিস্যুব্যগ তৈরির মেশিনারীজ মূল্য : ১,৪০,০০০/- ফুল কম্পিউরাইজড মেশিনের দামঃ ১৫ থেকে ২০ লাখ পরতে পারে


বিঃ দ্রঃ মেশিনগুলোর দাম পরিবর্তনশীল।

নন উইভেন টিস্যু ব্যাগ ফ্যাক্টরি

যেকোনো ধরনের নন ওভেন টিস্যু ব্যাগ এর জন্য যোগাযোগ করুন। আমরাই দিচ্ছি বাজারের সেরা ব্যাগ।
কমদামে ভালো ব্যাগ এর জন্য আজই কল করুন….

CARRY BAG BD || Call: 01533314920

01919-007799